NAVIGATION MENU

সাবেক সংসদ সদস্য মকবুল হোসেনের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক


আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য এবং সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ মকবুল হোসেনের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দু:খ প্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

রবিবার (২৪ মে) রাতে বার্তায় প্রধানমন্ত্রী বলেন, একজন জনবান্ধব নেতা হিসেবে তিনি দল ও জনগণের জন্য কাজ করে গেছেন।

শেখ হাসিনা মরহুমের আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন ও তার শোক-সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদা জ্ঞাপন করেন।

১৯৯৬ সালে ঢাকার ধানমন্ডি-মোহাম্মদপুর আসন থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য মকবুল হোসেন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে

রবিবার (২৪ মে) রাত ৯টা ১০মিনিটে সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭০ বছর।

১৯৯৬ সালের সপ্তম জাতীয় সংসদে ঢাকার ধানমন্ডি-মোহাম্মদপুর (তৎকালীন ঢাকা-৯) আসনের সংসদ সদস্য হাজী মকবুল হোসেন বর্তমানে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

হাজী মকবুল হোসেন ১৯৬৬ সালে ছাত্রলীগের জগন্নাথ কলেজ শাখার সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৬৮ সাল থেকে ১৯৭১ সাল পর্যন্ত তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের সমাজকল্যাণ ইন্সটিটিউট শাখা সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি সক্রিয়ভাবে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন। স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ছিলেন তিনি। তার পুত্র আহসানুল ইসলাম টিটু বর্তমান একাদশ জাতীয় সংসদের টাঙ্গাইল-৬ আসনে নির্বাচিত আওয়ামী লীগ দলীয় সংসদ সদস্য।

হাজী মকবুল হোসেন শমরিতা মেডিকেল কলেজ, ঢাকা ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি, সিটি ইউনিভার্সিটি, আলহাজ মকবুল হোসেন ইউনিভার্সিটি কলেজ, মোহাম্মদপুর কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ, মোহাম্মদপুর ল কলেজসহ আরও কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠা করেছেন। সন্ধানী লাইফ ইন্স্যুরেন্স, পূরবী জেনারেল ইন্সুরেন্সসহ বেশ কয়েকটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানেরও মালিক তিনি।

এডিবি/