NAVIGATION MENU

ভারতে ই-সিগারেট বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞা জারি


জনস্বাস্থ্য রক্ষার জন্য ভারতের অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন ই-সিগারেট বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞার জারি করেছেন। বুধবার সাংবাদিক বৈঠকে তিনি এ ঘোষণা দেন।

এর আগে, গত বছর আগস্টে ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জনস্বাস্থ্য রক্ষার জন্য বৃহত্তর স্বার্থে  ই-সিগারেটের বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞা জারির পরামর্শ দিয়েছিল।

সেই মতো ভারত ই-সিগারেটের উৎপাদন, রফতানি, বিক্রি, বিজ্ঞাপন সব কিছুর উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করল ।

ভারতের অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন বলেন, স্টাইলের জন্য নতুন প্রজন্মের অনেকে আসক্ত হয়ে পড়ছেন ক্ষতিকারক ই-সিগারেটে ।

সেই দিকে নজর রেখেই এই সিদ্ধান্ত। ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ এবং চিকিৎসকেরাও মানুষকে এটা ব্যবহার করা থেকে সতর্ক করছেন বারবার।

আরো পড়ুনঃ

খাবার ভেবে ছানার মুখে সিগারেটের ‍টুকরো

এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, ই-সিগারেটের তরল মিশ্রণ (ই-লিকুইড)-এর মধ্যে থাকে প্রপেলিন গ্লাইসল, গ্লিসারিন, পলিইথিলিন গ্লাইসল, নানাবিধ ফ্লেভার এবং নিকোটিন।

গরম হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এই রাসায়নিক গুলো থেকে সাধারণ সিগারেটের ধোঁয়ার সমপরিমাণ ফরমালডিহাইড উৎপন্ন হয়। এ ছাড়াও ই-সিগারেটের ধোঁয়ায় থাকে অতিসূক্ষ রাসায়নিক কণা যা ভীষণই ক্ষতিকারক।

ই-সিগারেটের অনিয়ন্ত্রিত ব্যবহারে মৃত্যুও হতে পারে বলে জানান বিশেষজ্ঞরা। জাপানের একটি সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, ই-সিগারেট সাধারণ সিগারেটের চেয়েও ১০ গুণ বেশি ক্ষতিকারক।

সিবি / এস এস