ন্যাভিগেশন মেনু

বাণিজ্যমেলা কবে হবে তা অনিশ্চিত: টিপু মুনশী

বাণিজ্যমেলা কবে হবে সেটা এখনো অনিশ্চিত বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশী।

রবিবার (৭ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১টায় বাণিজ্যমন্ত্রীর কাছে বাংলাদেশ-চায়না এক্সিবিশন সেন্টার হস্তান্তর অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা জানান।

ঢাকায় নিযুক্ত চিনা রাষ্ট্রদূত লি জিমিং বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশীর কাছে এই এক্সিবিশন সেন্টার হস্তান্তর করেন।

এ সময় বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বাণিজ্যমেলার জন্য পূর্বাচলে একটি স্থায়ী ঠিকানা হলেও মেলা কবে হবে সেটা এখনো অনিশ্চিত। করোনা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। এ বছর মেলা করার জন্য আমরা মানসিকভাবে একটা প্রস্তুতি নিয়েছিলাম।’ 

তিনি বলেন, ‘রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর সঙ্গে আলোচনা করে মেলার সম্ভাব্য তারিখ ঠিক করা হয়েছিলো। এ ব্যাপারে আমরা একটা প্রাথমিক সম্মতিও পেয়েছিলাম। করোনা পরিস্থিতির কারণে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন এটাকে স্লো করার জন্য। পরিস্থিতির উন্নয়ন হলে এটা আমরা করবো। ফলে মেলা আয়োজনের পুরো বিষয়টি এখন নির্ভর করছে করোনা পরিস্থিতির উন্নতির ওপর। আশাকরি, এ বছর আমরা একটা সুন্দর সময়ে মেলার আয়োজন করতে পারবো।’

টিপু মুনশী বলেন, ‘এবার মেলা নিয়ে অনিশ্চয়তা থাকলে আগামীতে জানুয়ারি থেকে মেলা আয়োজন করা হবে। প্রতি বছর ১ জানুয়ারি মেলা আয়োজনের যে ধারাবাহিকতা সেটা আমরা ধরে রাখবো। তবে এখন থেকে বাণিজ্য ও রপ্তানি সংক্রান্ত সব মেলা পূর্বাচলে নির্মিত বাংলাদেশ-চায়না ফ্রেন্ডশিপ এক্সিবিশন সেন্টারে আয়োজনে সরকারের পরিকল্পনা রয়েছে। সেটার জন্যই জায়গাটি ঠিক করা হয়েছে। আগামীতে আমাদের এক্সপোর্ট রিলেটেড মেলা ওখানেই হবে। ওই মেলার যে প্রেমেসিস, সেখানে সারাবছর বিভিন্ন রকমের প্রদর্শনী, অনুষ্ঠান করা হবে। সারাবছর ধরে বাণিজ্য প্রসারে নতুন এই প্রদর্শনী কেন্দ্রটিতে নানা আয়োজন করা হবে।’

এস এ/এডিবি