NAVIGATION MENU

দ্বিতীয় মেয়াদে নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন জাসিন্ডা


নিউজিল্যান্ডের সাধারণ নির্বাচনে বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়েছেন দেশটির ইতিহাসের অন্যতম প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আরডার্ন। বার্তা সংস্থা রয়টার্স ও এএফপির খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

শনিবার (১৭ অক্টোবর) দেশটির জাতীয় নির্বাচনে বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা।  করোনাভাইরাস মোকাবেলায় তার দারুণ সফলতার জন্যই জনগণ ফের তাকে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বিছে নিয়েছেন বলে বিশ্লেষকরা দাবি করছেন। এর মধ্য দিয়ে তার সংস্কার এজেন্ডা বাস্তবায়নের সুযোগ পেয়ে গেলেন তিনি।

দুই তৃতীয়াংশ ভোট গণনা হয়েছে। যার মধ্যে ৪৯ দশমিক দুই শতাংশ ভোট পেয়েছে আর্ডার্নের লেবার পার্টি। অর্থাৎ দেশটির পার্লামেন্টের ১২০ আসনের মধ্যে ৬৪টিতে তার দল জয়ী হওয়ার আভাস দিচ্ছে।

১৯৯৬ সালে সমানুপাতিক ভোটিং ব্যবস্থা গ্রহণের পর নিউজিল্যান্ডে এই প্রথম কোনো দল এত বেশি আসনে জয়ী হতে যাচ্ছে।

ওয়েলিংটনের ভিক্টোরিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজনৈতিক ভাষ্যকার ব্রিইস এডওয়ার্ডস বলেন, এটা একটি ঐতিহাসিক পালাবদল। এর মধ্য দিয়ে নতুন কোনো ভিত্তি তৈরি হয়েছে।

শনিবারের এ নির্বাচন সেপ্টেম্বরেই হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু কোভিড-১৯ এর নতুন প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়ায় ভোট এক মাস পিছিয়ে দেয়া হয়।

নিউজিল্যান্ডের এখনকার নির্বাচনী ব্যবস্থায় কোনো দলের পক্ষে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন দুরূহ। কিন্তু আর্ডার্নের এখন যে জনপ্রিয়তা তাতে তার দল সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়ে যেতে পারে বলেও অনেকে মনে করছেন।

নিউজিল্যান্ডে নতুন পার্লামেন্ট বেছে নেয়ার ভোট শনিবার স্থানীয় সময় সকাল ৯টায় শুরু হয়ে চলে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত।

এর আগে ৩ অক্টোবর থেকে আগাম ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছিল। সেখানেও ১০ লাখের বেশি মানুষ তাদের রায় জানিয়েছেন।

প্রতিনিধি বেছে নেয়ার পাশাপাশি শনিবার নিউ জিল্যান্ডের ভোটারদেরকে স্বেচ্ছামৃত্যুর বৈধতা দেয়া এবং গাঁজা বৈধ ও নিয়ন্ত্রণ সংক্রান্ত দুটো গণভোটেও অংশ নিতে হয়েছে।

ওআ/